পাশাপাশি মসজিদ মন্দির;যে যার মত স্বাধীনভাবে করছে ধর্ম পালন

ছবি : সংগ্রহীত

পাশাপাশি মসজিদ মন্দির;যে যার মত স্বাধীনভাবে করছে ধর্ম পালন

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ
মসজিদ ও মন্দিরের দুরত্ব বলতে মাঝখানে একটি রাস্তা।কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার নেওয়াশী ইউনিয়ন পরিষদের পাশেই এমন চিত্র দেখা যায়।
নাগেশ্বরী বাস স্ট্যান্ড থেকে চার কিলোমিটার পশ্চিমে সুখাতি বাজারে নাগেশ্বরী- নেওয়াশী সড়কে অবস্থিত এ মসজিদ ও মন্দির।

সুখাতি বাজারে গিয়ে জানা যায়,মন্দিরটি অনেক পুরোনো।গত কয়েকশ বছর ধরে এ এলাকায় হিন্দুধর্মালম্বীদের বসবাস।তবে কত বছর ধরে তাদের বসবাস সেটা সঠিক জানা যায়নি।
মুসলমানদের বসতিও কয়েকশত বছর পুরোনো।

এলাকার উভয় ধর্মালম্বীদের সাথে কথা বলে জানা যায়,সবাই নিজেদের ধর্ম, উৎসব সবকিছু স্বাধীনভাবেই পালন করে আসছে।কেউ কাউকে বাঁধা দেয়না।

সুখাতিতে তথ্য সংগ্রহের সময় একজন জানান,মন্দিরটি অনেক আগে থেকেই এখানে ছিল।তবে এখানে বাজার ছিলো না।১৯৯২ সালে বাজার তৈরি হলে ১৯৯৩ এর দিকে মসজিদটি নির্মাণ করা হয়।তখন থেকে সবাই নিজেদের ধর্ম নিজেদের মত করে পালন করে আসছি।

হিন্দুধর্মালম্বী এক ব্যক্তি জানায়,একে অপরের ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধা রেখেই চলি আমরা।এখন আমাদের সবচেয়ে বড় উৎসব দূর্গা পূজা হচ্ছে।আমরা মুসলিমদের নামাযের সময় আমাদের সকল কার্যক্রম বন্ধ রাখি।

মন্দিরে পূজা করতে আসা এক ভক্ত জানায়,এরকম দৃশ্য খুব কমই দেখা যায়। ভালো লাগার বিষয় এখানকার মানুষ অন্য ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধা করে। না হলে এমনটা সম্ভব না।

এসএফ-১১৬

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here