গুম এবং অপেক্ষার প্রহর

প্রকাশিত: ৫:৩৭ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৭, ২০১৯

গুম এবং অপেক্ষার প্রহর

ইসরাক আহমেদ ক্যানাডার বিশ্ববিদ্যালয় এর ছাত্র। ২০১৭ সালে অগাস্ট মাসে ক্যানাডা থেকে দেশে আসেন পরিবার এর সাথে ঈদ করতে। কিন্তু যেদিন বাংলাদেশ থেকে তার ক্যানাডায় ফিরে যাওয়ার কথা, সেদিনই তিনি নিখোঁজ হন। তার মা নাসরিন জাহান জানান “ছেলে তাকে বললো মা আজ শেষ দিন বন্ধুদের সাথে বাইরে রেস্টুরেন্টে দেখা করবো। রাত আটটা নাগাদ বাসায় না ফিরলে তাকে আমি ফোন করি। তার বাবাকে দিয়েও ফোন করাই। কিন্তু তার ফোন বন্ধ পাই। সেই থেকে আজ পর্যন্ত তার কোন খোঁজ পাইনি আমরা।”ছেলের ছবি হাতে নিয়ে আজও ছুটে বেড়াচ্ছেন নাসরিন জাহান ধর্ণা দিচ্ছেন এই থানা থেকে সেই থানা।আসায় বুক বেঁধে আছেন ছেলে একদিন ফিরে আসবে মা বলে জড়িয়ে দরবে! এইরকম শত শত মা তার সন্তানের সন্তান তার বাবার ভাই তার ভাইয়ের স্ত্রী তার স্বামীর ফিরে আসার অপেক্ষার প্রহর গুনছে ,শুধুই অপেক্ষা আর অপেক্ষা। মানবঅধিকার সংগঠন গুলার তথ্য অনুযায়ী ২০০৯ থেকে ২০১৯ এই দশ বছরে মোট ৫৩৮ জন গুম হয়েছে। এর মধ্যে ৩০০ জন অনেক দিন পর ফিরে এসেছে। আটষট্টি জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এবং ১৭০জন এখনো নিখোঁজ। গুম হওয়া মানুষ গুলো প্রায় সবাই সরকার বিরোধী নেতাকর্মী কিন্তু গুমের তালিকায় অনেকেই রয়েছেন রাজনৈতিক পরিচয়ের একেবারে বাইরে। আর বেশিরভাগ গুম এর সাথে রাষ্ট যন্ত্র জড়িত বলে অভিযোগ ।একটি স্বাধীন এবং সার্বভৌম দেশে তা কখনোই মেনে নেয়া যায় না । লেখক : কামরুল হাসান kamrul1590@hotmail.com



এ সংবাদটি 423 বার পড়া হয়েছে.
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

আমাদের সাথে কানেক্টেড থাকুন

নতুন আঙ্গিকে শাহজালাল টিভি