কনকনে শীতে অর্ধ চালা ঘরে রাত কাটছে ফুলবাড়ীর নাছিমার

প্রকাশিত: ৪:৩৫ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২২, ২০১৯

কনকনে শীতে অর্ধ চালা ঘরে রাত  কাটছে ফুলবাড়ীর নাছিমার

শেখ ফরিদ,কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ

নাছিমার  শীতের রাত

নাম নাছিমা।বিয়ে হয়েছিল কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীর তালুক শিমুলবাড়ি নন্দিরকুটি গ্রামের এক দৃষ্টি প্রতিবন্ধীর সাথে।বিয়ের পর ঘরে সন্তানও জন্ম নিয়েছে দুইটি। এক ছেলে ও এক মেয়েকে নিয়ে অভাব অনটনের মধ্য দিয়েও সুন্দরভাবে সংসার চলছির তাদের।

ছেলে-মেয়েকে স্কুলে ভর্তি করে দিয়েছে। ছেলে দ্বিতীয় ও মেয়ে তৃতীয় শ্রেণিতে পড়ে।তখন হটাৎ নাসিমার স্বামী মারা গেল। দুঃখ বাড়তে শুরু করলো নাছিমার। স্বামী মারা যাবার কয়েকদিন পর প্রচন্ড ঝড় হলো। এ যেন নাছিমার জীবনের জন্য একটি কালবৈশাখী ঝড়। তার ঘরের অর্ধেকটা উড়ে নিয়ে গেল সেই ঝড়ে।

অভাবের তাড়নায় সেই ঘর আর ঠিক করা হল না তার। দুই সন্তানকে নিয়ে বাকী অর্ধেকটাতে বর্ষা মৌসুমটা কেটে গেল। কেটে গেল শরৎ ও হেমন্ত কাল। এতদিনে বাকী অর্ধেকটারও কিছু অংশ ঝুরঝুরে হয়ে পড়ে গেছে। তারপর যখন শীতের আগমন ঘটলো তখনও সন্তানদের নিয়ে সেই ভাঙ্গা ঘরেই রাত কাটাচ্ছে নাছিমা।

কয়েকদিন ধরে ঘন কুয়াশা পড়তে শুরু করেছে। অভাবের তাড়নায় ঘর ঠিক করতে না পারায় কনকনে শীতের রাতেও কষ্টে রাত কাটাতে হচ্ছে নাছিমার। ঠান্ডা লেগে সন্তানের সর্দিকাশি দেখা দিচ্ছে। কিন্তু সেই ঘরেই রাত কাটানো ছাড়া তার আর কোনো পথ নেই। সরকারি কোনো সহায়তা পেলে নাছিমা তার দুই সন্তানকে নিয়ে একটু উষ্ণতায় রাতে ঘুমাতে পারে। 

 

তথ্যঃজাহিদ হাসান

এস এফ/২৭৫

 

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমাদের সাথে কানেক্টেড থাকুন

বিজ্ঞাপন

cloudservicebd.com